ঢাকা লিগে রূপগঞ্জের হয়ে খেলবেন মাশরাফি

আজ বুধবার শুরু হয়েছে ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগের দলবদল। দুই দিনের এই দলবদল প্রক্রিয়া অনলাইনে করার সুযোগ থাকায় প্রথম দিন মিরপুরের ক্রিকেট কমিটি অব ঢাকা মেট্রোপলিসের (সিসিডিএম) অফিসে খুব বেশি ব্যস্ততা ছিল না। তবে বিকেলের দিকে সশরীরে হাজির মাশরাফি বিন মুর্তজা। শেখ জামাল ধানমণ্ডি ক্লাব ছেড়ে এবার লিজেন্ড অব রূপগঞ্জে নাম লেখালেন বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের সাবেক এই অধিনায়ক।

দীর্ঘদিন ক্রিকেটের বাইরে থাকা মাশরাফি বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে খেলেছেন মিনিস্টার ঢাকার হয়ে। তবে ইনজুরির কারণে খুব বেশি ম্যাচ খেলতে পারেননি তিনি। এবার শুরু থেকে খেলতে চান ঢাকা লিগে। মানিয়ে নিতে সমস্যা হবে না বলে মনে করছেন তিনি।

সংবাদমাধ্যমকে মাশরাফি বলেন, ‘আমি তো টি-টোয়েন্টি থেকে অনেক আগেই অবসরে গিয়েছি। ওয়ানডেই আমি সবসময় খেলে এসেছি এবং আমার ফোকাস ছিল। এটা নির্ভর করে একজন নির্দিষ্ট খেলোয়াড় নির্দিষ্ট ফরম্যাটে কীভাবে মানিয়ে নেয়। ওয়ানডে ক্রিকেটই আমি সবসময় খেলে এসেছি এবং আমি বুঝিও ভালো, আমার জন্য সহজও। 

যোগ করেন মাশরাফি, ‘শেষ বার আমি শেখ জামাল ধানমন্ডির হয়ে খেলেছিলাম, এক ম্যাচ খেলার পর করোনা আসে তখন বন্ধ হয়ে গেলো। খুবই ভালো লাগছে, শুধু আমার না, আমি নিশ্চিত প্রিমিয়ার লিগ যারা খেলে, বাংলাদেশের বেশিরভাগ ক্রিকেটারই তো এই লিগটা খেলে। তারা সবাই আনন্দিত হবে যে আবারও টুর্নামেন্টটা শুরু হতে যাচ্ছে।’

দীর্ঘদিন বাংলাদেশ দলে সুযোগ না পেলেও এখনো অবসরের ঘোষণা দেননি। তবে ঘটা করে ছেড়েছেন জাতীয় দলের অধিনায়কের দায়িত্ব। এবার ঢাকা লিগে দলের প্রয়োজন হলে নেতৃত্ব দিতে চান তিনি। তার আগে চোট মুক্ত হতে ভারতে যাবেন মাশরাফি।

মাশরাফি বলেন, ‘দলের প্রয়োজন হলে অবশ্যই করবো। আমার কোমড় ব্যথা আছে একটু। চিকিৎসা করাতে যাচ্ছি। আশা করি সব ঠিক হলে শারীরিকভাবে ফিট হয়ে উঠব। ক্রিকেটীয় যে কার্যক্রম বা অন্যান্য যেসব বিষয় আছে আমি সেসব নিয়ে মাঝখানে ট্রেনিং করেছি। যথেষ্ট টুর্নামেন্ট ছিল না খেলার সুযোগ কম ছিল। বিপিএল ছিল, ঐ সময় ব্যাক পেইনটা পেয়েছি। ওটার চিকিৎসাটা করার পর আশা করি সমস্যা হবে না।’


মেরাজুল কনক

আমি মেরাজুল ইসলাম, একজন বাংলাদেশী ব্লগার। ব্লগিং এর পাশাপাশি আমি ওয়েবসাইট ডিজাইন, কন্টেন্ট রাইটিং, কাস্টমাইজ সহ ওয়েব রিলেটেড অনেক কাজ করি।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন (0)
নবীনতর পূর্বতন